Header Ads

Header ADS

ঘরে বসে কিভাবে সিক্স প্যাক বডি বিল্ড করবেন।

 ঘরে বসে কিভাবে সিক্স প্যাক বডি বিল্ড করবেন। 


সুন্দর সুঠাম শরীর পেতে কে না চান। আর তার জন্য সারাদিনের সমস্ত ব্যস্ততার পরেও চলে শরীর চর্চা। কিন্তু বেশি লোক শুধুই শরীর চর্চা করে যান। তা সত্ত্বেও কীভাবে শরীর চর্চা করলে তবেই অনেক ভালো দেহ পাবেন, সেটাই জানেন না। সিনেমার নায়কদের দেখে অনেকেরই ইচ্ছে হয় সিক্স প্যাক অ্যাবস করার। অথচ প্রক্রিয়া না জানা থাকার জন্য সে ইচ্ছে স্বপ্নেই হতে যায়। আপনার মনেও যদি তেমন কোনও সুপ্ত স্পৃহা থেকে থাকে, তাহলে জেনে গ্রহন করুন কীভাবে সিক্স প্যাক অ্যাব প্রস্তুত করবেন-

পেজ সূচীপত্র ঃ

প্রথমেই বলে রাখা ভালো, সিক্স প্যাক অ্যাব জিমে তৈরি হয় না। তৈরি হয় রান্নাঘরে। ৭০ শতাংশ সঠিক সংখ্যা আহার এবং ৩০ শতাংশ দেহ চর্চার ফলেই সিক্স প্যাক অ্যাবস পাওয়া সম্ভব।

খাবারের তালিকা : খাবারের তালিকায় নিশ্চয়ই আমিষ রাখার চেষ্টা করবেন অধিক পরিমানে। মাছ, মাংস, ডিম প্রোটিনের খনি। এছাড়া অ্যাভোক্যাডো, বাদাম, বাদামের মাখন, অলিভ অয়েল, নারকেলে যে ফ্যাট থাকে, তা শরীরের জন্য উপকারী। 

শরীর চর্চার আগে কি খাবেন : শরীর চর্চার প্রথমে তার সাথে পরে কী আহার খাবেন, তা দেহ চর্চার প্রকারের ওপর নির্ভর করে। দেহ চর্চার পরে কলা-বাদাম-দুধ দিয়ে প্রস্তুত আমিষ শেক খান।

ব্রাউন রাইস, পাস্তা এবং সব্জিতে যে কার্বস থাকে, তা অবশ্যই ডায়েটে প্রয়োজনীয়। দেহের ওজন অনুসারে প্রতি ০.৪ কেজিতে ২ থেকে ৩ গ্রাম কার্বস খাওয়া প্রয়োজন।

আরো পড়ুন :

প্রত্যেক ৩ হতে ৪ ঘণ্টা অন্তর খাবার আহার করা দরকার। নগণ্য পরিমানে অন্ন বেশি বারে খান।

এক দিনে আপনার ওজনের প্রতি কেজিতে ০.৮ গ্রাম করে আমিষ খান।

বহু পরিমানে জল খাওয়া দরকার। জল খাওয়ার কোনও নির্দিষ্ট পরিমান নেই। প্রতি ২০ কেজিতে ২ লিটার জল  প্রয়োজন।

দিনের সমাপ্ত খাবার : দিনের সমাপ্ত খাবারটিতে মিডিয়াম ফাইবার তার সাথে বেশি জলীয় খাবার রাখতে হবে। এর কারণ, যখন আপনি ঘুমিয়ে পড়বেন, তখন পানি খেতে পারবেন না। কিন্তু দেহের জলের প্রয়োজন হবে।

দিনের শেষ খাদ্যে মাছ রাখার ট্রাই করবেন। কারণ, মাছ পাতলা খাবার। মাছে মুল্যবান অ্যামিনো অ্যাসিড তার সাথে প্রয়োজনীয় ফ্যাটি অ্যাসিড থাকে।

কোন মন্তব্য নেই

Blogger দ্বারা পরিচালিত.